দেশে করোনায় আরও ৪২ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২৪৮৫

নিজস্ব প্রতিবেদক : ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ৪২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃত্যু হয়েছে তিন হাজার ৯৮৩ জনের।নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন দুই হাজার ৪৮৫ জন। সব মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে দুই লাখ ৯৭ হাজার ৮৩ জনে। সোমবার (২৪ আগস্ট) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, ঢাকা সিটিসহ দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ও বাড়িতে উপসর্গ বিহীন রোগীসহ গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন তিন হাজার ৭৮৪ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ৮২ হাজার ৮৭৫ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ১৮ দশমিক ৫৭ শতাংশ ও এ পর্যন্ত শনাক্তের হার ২০ দশমিক ৪০ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৬১ দশমিক ৫৬ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার এক দশমিক ৩৪ শতাংশ। সারাদেশে সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ৯১টি ল্যাবে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ১৩ হাজার ৬৭৫টি। মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১৩ হাজার ৩৮২টি। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৪ লাখ ৫৬ হাজার ৩৮টি।

বিজ্ঞতিতে আরও বলা হয়, ২৪ ঘণ্টায় মৃত ৪২ জনের মধ্যে ৩১ জন পুরুষ ও নারী ১১ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী সুস্থ হয়েছেন ৩ হাজার ৭৮৪ জন, যা গতকালের তুলনায় ২৫৯ জন বেশি এবং শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৬১ দশমিক ৫৬ শতাংশ। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত সুস্থ হলেন এক লাখ ৮২ হাজার ৮৭৫ জন রোগী।

গতকাল রবিবার (২৩ আগস্ট) আগের দিনের তুলনায় ৫৭২ জন রোগী বেশি সুস্থ হয়েছিলেন; অর্থাৎ গত দুই দিন ক্রামগত সুস্থতার সংখ্যা বেড়েছে।মারা যাওয়াদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৬০ ঊর্ধ্ব ১৯ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ১২ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ৯ জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ২ জন রয়েছেন।

বিভাগ বিশ্লেষণে দেখা যায়, মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ২১ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ৭ জন, রাজশাহী বিভাগে ৩ জন, খুলনা বিভাগে ৬ জন, বরিশাল বিভাগে একজন, রংপুর বিভাগে ২ জন এবং ময়মনসিংহ বিভাগে ২ জন রয়েছেন। ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেছেন ৩৮ জন এবং ৪ জন বাড়িতে মৃত্যুবরণ করেছেন।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে স্বাস্থ্য অধিদফতর আরও জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে রাখা হয়েছে ৪৮৮ জনকে। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ২০ হাজার ২৮৭ জন। ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশন থেকে ছাড়া পেয়েছেন ৮২০ জন, এখন পর্যন্ত ছাড়া পেয়েছেন ৪৬ হাজার ৯৪০ জন। এখন পর্যন্ত আইসোলেশন করা হয়েছে ৬৭ হাজার ২২৭ জনকে।

প্রাতিষ্ঠানিক ও হোম কোয়ারেন্টিন মিলে ২৪ ঘণ্টায় কোয়ারেন্টিন করা হয়েছে এক হাজার ৮৯৭ জনকে। কোয়ারেন্টিন থেকে গত ২৪ ঘণ্টায় ছাড়া পেয়েছেন এক হাজার ৮৪৮ জন, এখন পর্যন্ত ছাড়া পেয়েছেন ৪ লাখ ৩০ হাজার ১৯৪ জন। এখন পর্যন্ত কোয়ারেন্টিন করা হয়েছে ৪ লাখ ৮২ হাজার ৯২১ জনকে। বর্তমানে কোয়ারেন্টিনে আছেন ৫২ হাজার ৭২৭ জন।