ইউএনওর ওপর হামলাকারীরা দ্রুতই গ্রেপ্তার হবে : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলেছেন, দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ওয়াহিদা খানমকে হামলাকারীদের গ্রেপ্তারে কাজ করছে পুলিশ। পাশাপাশি উন্নত চিকিৎসার জন্য তাঁকে হেলিকপ্টারে করে ঢাকায় আনা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে সচিবালয়ে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান প্রতিমন্ত্রী।

ফরহাদ হোসেন জানান, ইউএনও ওয়াহিদা খানম এবং তাঁর বাবাকে দুর্বৃত্তরা হাতুড়ি দিয়ে আঘাত করেছে। সরকারি বাসভবনের দোতলার ভেন্টিলেটর ভেঙে বাসায় প্রবেশ করে দুর্বৃত্তরা। ঢাকায় এনে তাঁকে রাজধানীর ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরোসায়েন্সেস ও হাসপাতালে চিকিৎসা করানো হচ্ছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘জেলা প্রশাসক (ডিসি) এবং পুলিশ সুপার (এসপি) এখনো ঘোড়াঘাটে ইউএনওর বাসায় অবস্থান করছেন। আমরা কিছুক্ষণ আগে তাদের সঙ্গে কথা বলেছি। এসপি সাহেব জানিয়েছেন, খুব দ্রুতই তারা দুর্বৃত্তদের নাম-ঠিকানা বের করতে পারবেন। তাদের প্রচেষ্টা চলছে। ইউএনওর বাসায় সিসি ক্যামেরা ছিল। সেগুলো দেখে দুর্বৃত্তদের শনাক্তের চেষ্টা চলছে। তবে তাদের মুখে মুখোশ ছিল। তাদের শনাক্তে পুলিশের চৌকস টিম কাজ করছে।’ তিনি বলেন, ‘এটি অবশ্যই একটি দুঃখজনক ঘটনা। অবিলম্বে দুর্বৃত্তরা গ্রেপ্তার হবে এবং তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হবে।’

গতকাল বুধবার রাত আড়াইটার দিকে সরকারি বাসভবনের ভেন্টিলেটর ভেঙে দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ওয়াহিদা খানম ও তাঁর বাবার ওপর দুর্বৃত্তরা হামলা চালায়। প্রাথমিকভাবে গুরুতর অবস্থায় তাদের রংপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থার অবনতি হলে তাদের ঢাকায় নিয়ে আসা হয়।