অপরাজিতার মালিক শারমিন গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক: নকল মাস্ক সরবরাহের দায়ে অপরাজিতা ইন্টারন্যাশনালের মালিক শারমিন জাহানকে গ্রেপ্তার করেছে গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) একটি দল। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের গণমাধ্যম শাখার প্রধান ওয়ালিদ হোসেন শারমিনের গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ওয়ালিদ হোসেন বলেন, শুক্রবার রাতে সাভারের একটি বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি মামলা হওয়ার পর থেকেই পলাতক ছিলেন। পরে সেখান থেকে গোপন সংবাদে ঢাকার ডিবির দল তাকে গ্রেপ্তার করে। শারমিনকে ডিবি কার্যালয়ে আনা হয়েছে। এ বিষয়ে সংবাদ সম্মেলনে আজ শনিবার বিস্তারিত জানানো হবে।

রমনা জোনের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি) সাজ্জাদ হোসেনও এর আগে শারমিন জাহানকে গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এর আগে নকল মাস্ক সরবরাহের দায়ে অপরাজিতা ইন্টারন্যাশনালের স্বত্বাধিকারী শারমিন জাহানের বিরুদ্ধে মামলা করে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) কর্তৃপক্ষ। শুক্রবার (২৪ জুলাই) রাতে মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেন শাহবাগ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবুল হাসান।

আবুল হাসান বলেন, বৃহস্পতিবার (২৩ জুলাই) রাতে বিএসএমএমইউয়ের প্রক্টর বাদী হয়ে মামলা করেন। মামলায় শারমিনকে প্রধান আসামি করা হয়েছে। তদন্ত শুরু হয়েছে। তদন্তে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মামলায় অভিযোগ করা হয়, বিএসএমএমইউ হাসপাতালে মাস্ক সরবরাহের অনুমতি পায় শারমিন জাহানের প্রতিষ্ঠান অপরাজিতা ইন্টারন্যাশনাল। কিন্তু প্রতিষ্ঠানটি নকল মাস্ক সরবরাহ করে। এই মাস্ক ব্যবহার করে চিকিৎসক ও রোগী ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন। একই সঙ্গে নকল মাস্ক সরবরাহ করে প্রতিষ্ঠানটি বিপুল পরিমাণ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।

জানা গেছে, শারমিন জাহান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলাদেশ কুয়েত মৈত্রী হল শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ছিলেন। এরপর কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক পদে ছিলেন। আওয়ামী লীগের গত কমিটিতে মহিলা ও শিশুবিষয়ক কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সদস্য ছিলেন তিনি।