মানবজাতির জন্য হুমকি এখন করোনাভাইরাস: জাতিসংঘ

Antonio Guterres, UN High Commissioner for Refugees UNHCR at a Press Conference after 66th session of Excom. 9 October 2015. UN Photo / Jean-Marc Ferré

ভয়াবহ করোনাভাইরাসকে গোটা মানবজাতির জন্য হুমকি হিসেবে দেখছেন জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস গোটা মানবজাতিকেই এর মোকাবিলা করতে হবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

আলজাজিরা জানায়, কভিড-১৯ ভাইরাসে ইতালি ও স্পেনের মৃতের সংখ্যা প্রতিদিন লাফিয়ে লাফিয়ে বেড়ে চলার প্রেক্ষিতে এমন উদ্বেগ প্রকাশ করেন গুতেরেস।

গরিব দেশগুলো যাতে করোনাভাইরাস প্রাদুর্ভাব মোকাবিলা করতে পারে এর জন্য আন্তর্জাতিক মানবিক সহায়তা চেয়েছেন তিনি। এর জন্য ২০০ কোটি ডলারের একটি তহবিল ঘোষণা করেন।

এদিকে জনস হপকিন্স ইউনিভার্সিটির তথ্যানুসারে, পৃথিবীজুড়ে মৃতের সংখ্যা এখন ২১ হাজার ২৭৬। আক্রান্ত চার লাখ ৭১ হাজার। তবে এর মধ্যে সুস্থ হয়ে গেছে এক লাখ ১৪ হাজার মানুষ।

জাতিসংঘের তহবিল ঘোষণার পরপরই স্পেনে ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছে সাত শতাধিক লোক। মৃতের সংখ্যায় স্পেনের অবস্থান এখন দ্বিতীয়। ইতালির মতো চীনকে ছাড়িয়ে গেছে দেশটি।

ডিসেম্বরের শেষে চীনের হুবেই প্রদেশের রাজধানী উহান থেকে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে। দেশটিতে মৃতের সংখ্যা ৩ হাজার ২৮৫ জন। আর ইতালিতে মারা গেছে সাড়ে সাত হাজার। স্পেনে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩ হাজার ৬৪৭ হাজার।

তবে গোটা হুবেই প্রদেশে গত কয়েকদিন ধরে মৃত ও আক্রান্তের সংখ্যা শূন্যে নেমে এসেছে। উহানকে করোনামুক্ত ঘোষণা করে আতশবাজি করে চীনা সরকার।

এর মধ্যে করোনাভাইরাসের ভয়াবহ সংক্রমণ ঘটে ইউরোপে। ইতালি, স্পেন ছাড়াও আরও কয়েকটি দেশে মারা গেছে শত শত মানুষ।

এদিকে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) জানিয়েছে, মৃতের সংখ্যা বাড়তে থাকলেও ইউরোপে আক্রান্তের কমে এসেছে। তবে আমেরিকায় সে সংখ্যা বাড়ছে।

জেনেভায় সংস্থার মুখপাত্র মার্গারেট হ্যারিস বলেন, ‘আমেরিকায় সংক্রমণ ব্যাপক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। মঙ্গলবা

র বিকেল পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় ৮৫ শতাংশ নতুন আক্রান্তই ইউরোপ ও আমেরিকায়। তার মধ্যে আবার শুধু আমেরিকাতেই ৪০ শতাংশ।’

মার্গারেট বলেন, ‘এখন আমরা দেখতে পাচ্ছি, আমেরিকায় ব্যাপক হারে সংক্রমণ বাড়ছে। তাই অঞ্চলটি করোনার নতুন উপকেন্দ্র হয়ে ওঠার যথেষ্ট সম্ভাবনা রয়েছে।’